ব্ল্যাক ম্যাজিক (পঞ্চম পর্ব)

  •  
  •  
  •  
  •  

চলে যাচ্ছি দ্বিতীয় বিষয়ে, কি কারনে জ্বীন মানুষকে আক্রমণ করে? কেন তারা মানুষদের প্রতি আকৃষ্ট হয়? এটা এখন আলোচনা করবো। সব থেকে গুরুত্বপুর্ন তিনটা কারন নিয়ে আলোচনা করবো।

**প্রথম কারন হলো, শয়তানের আজ্ঞা বহন করে মানুষের ক্ষতি করতে। উদাহরণ স্বরূপ আমরা ধরি একটি মানুষের উপর কালাজাদু করেছে কেউ। শয়তানের আদেশ অনুসারে খারাপ জ্বীনরা ওই মানুষটার উপর ভর করে। যাতে তার উপর যে কালাজাদু করা হয়েছে সেটি আরও শক্তিশালী হয়ে ওঠে। এর ফলে শয়তান তার উদ্দেশ্য হাসিলে সহজেই সফল হয়ে উঠতে পারে।

দ্বিতীয় কারন, যদি কোনো মানুষ মনের অজান্তে অথবা সজ্ঞানে কোনো জ্বীন অথবা জ্বীনের পরিবারের ক্ষতি করে। এইরকম বহু নিদর্শন আমার ব্যাক্তিগত ভাবে জানা আছে। আমি একটি উদাহরণ দিয়ে বোঝাই – ধরুন আপনার শহরে বা গ্রামের বাড়িতে একটি জায়গা অতিপ্রাকৃতিক ঘটনার জন্য বিখ্যাত। সবাই সেখানে যেতে ভয় পায়। সেখানে জ্বিনদের বসবাস আছে এরকমও অনেকে দাবি করে। সেখানে গিয়ে যদি আপনি ধর্ম-বিরোধি কোনো কাজ করেন বা বহুদিন যাবত বসবাস করার মনোবাসনা করেন তাহলে সেখানে বসবাসরত জ্বীনেরা আপনাকে আক্রমণ করবে।

যেমন ধরুন, নিজেকে আরাম দিতে আপনি সেখানে মল-মুত্র ত্যাগ করলেন বা রান্না করার পর গরম পানি ছুড়ে ফেললেন বা গরম তেল ছুড়ে ফেললেন। এতে যদি তাদের বাচ্চাদের ক্ষতি হয় বা তাদের পরিবারের সদস্যদের ক্ষতি হয় তবে তারা আপনাদের ক্ষতি করবেই। এখানে বলে রাখি, কিছু কিছু দ্রব্য মানুষ এবং জ্বীন উভয়ের জন্যই ক্ষতিকর। আমাদের যেমন ক্ষতি হতে পারে তাদেরও সে সমস্ত বস্তু দ্বারা ক্ষতি হতে পারে। যেমনঃ- ফুটন্ত পানি, ফুটন্ত তেল ইত্যাদি।

[চলবে]

২৩/০৪/২০২০, ০৯.৪৯ PM

ব্ল্যাক ম্যাজিক (প্রথম পর্ব)

ব্ল্যাক ম্যাজিক (দ্বিতীয় পর্ব)

ব্ল্যাক ম্যাজিক (তৃতীয় পর্ব)

ব্ল্যাক ম্যাজিক (চতুর্থ পর্ব)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *